শুক্রবার, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২১
Home খেলাধুলা বাংলাদেশ সফরের মধ্য দিয়ে ক্যারিয়ারের ইতি টানবেন মাসাকাদজা

বাংলাদেশ সফরের মধ্য দিয়ে ক্যারিয়ারের ইতি টানবেন মাসাকাদজা

যোগাযোগ ডেস্কঃ

 ২০০১ সাল, প্রায় দেড় যুগ আগে, ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে শুরু হয়েছিল জিম্বাবুয়ের তারকা ক্রিকেটার হ্যামিল্টন মাসাকাদজার আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ক্যারিয়ার।নিজ চোখের সামনে দেখেছেন জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটের উত্থান-পতনের গল্পটা  ৩৬ বছর বয়সী এ ক্রিকেটার।

এবার তিনি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সরে দাঁড়াবেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে। আর কখনো খেলতে নামবেন না জিম্বাবুয়ের জার্সি গায়ে। বাংলাদেশে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজেই শেষবারের মতো আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলবেন মাসাকাদজা। এরপর নেবেন অবসর।

নিজের অবসরের সিদ্ধান্ত জানিয়ে মাসাকাদজা বলেন, ‘অনেক পর্যালোচনার পর আমি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। বাংলাদেশে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলেই বিদায় জানাবো আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে। নিজ দেশের হয়ে খেলা, অধিনায়কত্ব করা সত্যিই অনেক গর্বের বিষয় আমার জন্য। অবসরের সিদ্ধান্ত নেয়াটা অনেক কঠিন ছিল।’

গতবছর বিশ্বকাপ বাছাইপর্বে ব্যর্থতার পর তিন ফরম্যাটেই জাতীয় দলের অধিনায়কত্ব দেয়া হয় মাসাকাদজাকে। তবে এর আগেও ২০১৬ সালে জিম্বাবুয়ের অধিনায়কত্ব করেছেন তিনি। গত জুলাই মাসে আইসিসির নিষেধাজ্ঞার পর থেকে অনিশ্চয়তায় পড়ে গেছে জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটের ভবিষ্যত।

তাই নিজের ক্যারিয়ারকে আর দীর্ঘায়িত করার কারণ খুঁজে পাচ্ছেন না মাসাকাদজা। আইসিসির এ নিষেধাজ্ঞায় অবসরের সিদ্ধান্ত নেয়া দ্বিতীয় জিম্বাবুইয়ান ক্রিকেটার তিনি। এর আগে পেস বোলিং অলরাউন্ডার সলোমন মিরে বিদায় জানিয়েছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে।

আইসিসির নিষেধাজ্ঞা না থাকলে অন্তত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব পর্যন্ত খেলতেন মাসাকাদজা। তিনি বলেন, ‘আমার লক্ষ্য ছিলো আগামী মাসে দুবাইতে হতে যাওয়া টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বাছাইপর্বটা খেলবো। কিন্তু সে টুর্নামেন্টে জিম্বাবুয়ে খেলতে পারবে না। তাই আমি মনে করি এখনই আমার বিদায় বলা উচিৎ।

এখনও পর্যন্ত ৩৮ টেস্ট খেলে ৫ সেঞ্চুরি ও ৮ ফিফটিতে ২২২৩ রান করেছেন মাসাকাদজা। ২০০১ সালে মাত্র ১৮ বছর বয়সে অভিষেক ম্যাচে সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে রেকর্ড গড়েছিলেন তিনি। পরে সে রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন বাংলাদেশের একসময়কার তারকা ক্রিকেটার মোহাম্মদ আশরাফুল ।

টেস্টের মতো ওয়ানডেতে স্মরণীয় স্মৃতি রয়েছে মাসাকাদজা। সবমিলিয়ে ২০৯ ওয়ানডেতে ৫ সেঞ্চুরি ও ৩৪ ফিফটিতে তার সংগ্রহ ৫৬৫৮ রান। এর মধ্যে ২০০৯ সালে কেনিয়ার বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের সিরিজে ২টি ১৫০+ রানের ইনিংসসহ মোট ৪৬৭ রান করেছিলেন তিনি। যা কি-না তখনকার সময়ে এক সিরিজে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড ছিল।

এছাড়া টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে মাসাকাদজার অভিজ্ঞতা ৬২ ম্যাচের। এর সঙ্গে বাংলাদেশে হতে যাওয়া ত্রিদেশীয় সিরিজের পর যোগ হবে অন্তত আরও ৪টি ম্যাচ। এখনও পর্যন্ত খেলা ৬২ টি-টোয়েন্টিতে মাসাকাদজার সংগ্রহ ১৫২৯ রান।

সুত্রঃ জাগোনিউজ

সর্বশেষ

তামিমা মেয়ের খোঁজ নিতেন না

ক্রিকেটার নাসির হোসেনের নববিবাহিত স্ত্রী তামিমা সুলতানা তাম্মি প্রথম ঘরের মেয়ের কোনো খোঁজখবরই নিতেন না। আর এমনটা জানিয়েছে তার ও রাকিবের শিশুকন্যা রাফিয়া হাসান...

প্রেসিডেন্ট বাইডেনের প্রথম হামলা সিরিয়ায়, নিহত ১৭

সিরিয়ায় ইরানের অনুগত মিলিশিয়া বাহিনীর স্থাপনায় বিমান হামলা চালিয়েছে মার্কিন বাহিনী। পেন্টাগন অফিস জানিয়েছে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের অনুমতি নিয়ে এই হামলা চালানো হয়েছে। আল...

‘বিবিসির রিপোর্ট ভুল, ভাসমান রোহিঙ্গারা বাংলাদেশ থেকে অনেক দূরে’

সুমদ্রে ভাসমান রোহিঙ্গাদের নিয়ে সম্প্রতি বিবিসির এক প্রতিবেদনের তথ্যগত ভুলের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে বাংলাদেশের। বিবিসির প্রতিবেদনে ভুল করে বলা হয়েছে। ‘একদল রোহিঙ্গা বাংলাদেশের সমুদ্রসীমায়...

সিলেটে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ০৮ জন নিহত

সিলেটে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ৮ জন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরো ১৫ জন। দক্ষিণ সুরমা উপজেলার রশিদপুর সেতুর কাছে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে...