মঙ্গলবার, অক্টোবর ২০, ২০২০
Home শিক্ষাঙ্গন রাবির ভর্তি ফরমের মূল্য কমানোর দাবিতে ১২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম

রাবির ভর্তি ফরমের মূল্য কমানোর দাবিতে ১২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম

- Advertisement -

রাবি প্রতিনিধি:

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ভর্তি ফরমের মূল্য কমানোর দাবিতে প্রশাসনকে ১২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিয়ে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেছেন শিক্ষাবাণিজ্য বিরোধী শিক্ষার্থীরা। গতকাল (২৮ শে জুলাই) দুপুরে কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে তারা প্রথমে বিক্ষোভ সমাবেশ এবং পরে মানববন্ধন করেন ।

মানব বন্ধনে ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের মাহমুদ সাকি বলেন, , বর্তমানে আমাদের রাষ্ট্রের অবস্থা সম্পর্কে সবাই অবগত আছি, দেশে হত্যা, ঘুম, দর্শন ও বন্যার কবলে মানুষ যখন নানা সমস্যায় জর্জরিত ঠিক তখন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে ভর্তিচ্ছুক শিক্ষার্থীদের ভর্তি ফরমের মূল্য করেছেন ১৯৮০ টাকা। এই সিদ্ধান্ত সম্পূর্ণ অযৌক্তিক,অন্যায় ও ব্যবসা বান্দব। আজ রাকসু নেই বলে সাধারণ শিক্ষার্থীদের পক্ষে কথা বলার কেউ নেই। আর প্রশাসন চায়না যে রাকসু হোক, সাধারণ শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে কেউ কথা বলুক। তাই আমাদের সাধারণ শিক্ষার্থীদের সচেতন হতে হবে এবং এরকম অমানবিক সিদ্ধান্তের এখনই লাগাম টানতে হবে। তা নাহলে এ বছর যেটা ২ হাজার টাকা সেটা আগামী বছর হবে ৪ হাজার টাকা। প্রশাসনকে বুঝাতে হবে শিক্ষা বাণিজ্য নয়, শিক্ষা সামাজিক অধিকার।

রসায়ন বিভাগের শিক্ষার্থী সাকিল বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শোভা বর্ধনের জন্য একটা বিশাল অংকের টাকা খরচ করা হচ্ছে। এগুলো করা হচ্ছে এ দেশের কৃষক, শ্রমিক,দিনমজুর সবার টাকায়। কিন্তু বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন যেভাবে ভর্তি ফরমের মূল্য নির্ধারণ করেছে তাতে মনে হয় যে তাঁদের ছেলেমেয়েদের বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার কোনো অধিকার নেই। একটা বিশ্ববিদ্যালয়ে আবেদন করতে যদি এত টাকা লাগে তাহলে গরিব মেধাবী শিক্ষার্থীরা অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ে আবেদন করবে কিভাবে ? তাই প্রশাসনের এরকম অমানবিক সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে দুর্বার আন্দোলন গড়ে ব্যাবসায়িক প্রতিষ্ঠানকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পরিণত করতে হবে।

বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রীর সাধারণ সম্পাদক রনজু হাসান বলেন, শিক্ষা পণ্য নয়,শিক্ষা অধিকার। সমাজের সকল শ্রেণীর মানুষের শিক্ষার অধিকার রয়েছে। তাই সমাজের সকলের কথা চিন্তা করে ভর্তি ফরমের মূল্য নির্ধারণ করা উচিত ছিল। যেহেতু অন্যবারের তুলনায় এবার ইউনিট কমানো হয়েছে সেহেতু সবকিছুর খরচও কম হবে। সেক্ষেত্রে প্রশাসনের ভর্তি ফরমের এরকম মূল্য নির্ধারণ করার পিছনে ব্যাবসায়িক উদ্দেশ্য ছাড়া অন্য কোনো কারণ দেখছিনা। এতে করে অনেক গরিব মেধাবী শিক্ষার্থীরা ক্ষতিগ্রস্থ হবে, যেটা কখনো মেনে নেওয়া যায় না। তাই অমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনকে ১২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিচ্ছি।এ সময়ের মধ্যে যদি প্রশাসন ভর্তি ফরমের মূল্য না কমিয়ে আনে তাহলে আমরা দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবো।

এ সময় মানব বন্ধনে আরো বক্তব্য দেন, হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী মাসুদ রানা ও আরেফিন মেহেদী, এমএসি বিভাগের শিক্ষার্থী রিদম সাহরিয়ার, বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী হরোপাদিত্য।

মিনহাজ অবেদীন
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

সর্বশেষ

করোনায় তিনমাস পর ভারতে সর্বনিম্ন প্রাণহানি

বিশ্বে করোনা শনাক্তের তালিকায় ২য় অবস্থানে আছে ভারত। যেখানে কমেছে সংক্রমণ ও প্রাণহানি। গত এক সপ্তাহ সংক্রমণ ৭০ হাজারের কোটায় থাকলেও আজ তা ৫৫...

অপেক্ষায় দিন গুনছে আনুশকা ও বিরাট

অপেক্ষায় দিন গুনছেন আনুশকা শর্মা। একই অপেক্ষায় রয়েছেন বিরাট কোহলিও। আর কয়েকদিন পরেই এই জুটির ঘরে আসবে নতুন অতিথি। প্রথমবার সন্তানের বাবা-মা হবেন তারা।...

জাপানের ভ্যাকসিন প্রকল্পে সাইবার হামলা, চীনকে দুষছে যুক্তরাষ্ট্র

মার্কিন করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন সম্পর্কিত তথ্য চীন হাতিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ তুলেছে যুক্তরাষ্ট্র। করোনার চিকিৎসা ও এর প্রতিরোধে কার্যকর ভ্যাকসিন পেতে অন্য...

বিগ বস ১৪-র ঘরে হাজির হচ্ছেন রিয়া চক্রবর্তী

বিগ বস ১৪-র ঘরে হাজির হচ্ছেন রিয়া চক্রবর্তী! বেশ কিছুদিন ধরেই এমন গুঞ্জন শুরু হয়েছে। রিয়া চক্রবর্তী এ বিষয়ে কোনও মন্তব্য না করলেও, ফের...