বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ২৯, ২০২০
Home টপ নিউজ সাহেবদের দাপটে সমস্ত মশা ধ্বংস হওয়ার কথা: গণফোরাম

সাহেবদের দাপটে সমস্ত মশা ধ্বংস হওয়ার কথা: গণফোরাম

- Advertisement -

ডেঙ্গু প্রতিরোধে সরকার ব্যর্থ হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন গণফোরামের নেতারা। তাঁরা বলেছেন, মন্ত্রীদের কথার ও দাপটের তোড়ে দেশের সব মশাদের ধ্বংস হওয়ার কথা। ডেঙ্গু প্রতিরোধে ব্যর্থতার জন্য ঢাকার দুই সিটি দুই মেয়রের পদত্যাগও দাবি করেছেন বক্তারা।

ডেঙ্গু, খুন-ধর্ষণের প্রতিবাদে আজ সোমবার সকালে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে গণফোরাম অবস্থান কর্মসূচি পালন করে। সেখানেই এসব কথা বলেন বক্তারা।

অনুষ্ঠানে গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি আবু সাইয়িদ বলেন, মন্ত্রী ‘সাহেবরা যত কথা বলেন, সেই কথা যদি যোগ করা হয় তাহলে দেখা যাবে এই কথার দ্বারা বাংলাদেশে একটা মশাও থাকার কথা না। কথার তোড়ে, মন্ত্রীদের দাপটে সমস্ত মশার ধ্বংস হওয়ার কথা। কিন্তু একেকজন মন্ত্রী একেকভাবে কথা বলেন।’

মশার কেনার ওষুধে দুর্নীতি হয়েছে বলে অভিযোগ করে আওয়ামী লীগ সরকারের সাবেক মন্ত্রী সাইয়িদ বলেন, সরকার সব ক্ষেত্রে ব্যর্থ। এটা গণতান্ত্রিক নয় আমলা ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ওপর ভরসা করার সরকার। জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিভিন্ন সংগঠনের অবস্থান কর্মসূচির কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, দুঃশাসনের কারণে মানুষ তাদের দাবি দাওয়া নিয়ে রাস্তায় নেমেছে।

আবু সাইয়িদ বলেন, এই সরকারের নীতি হচ্ছে গরিবের কাছ থেকে টাকা আদায় করে ধনীদের কাছে দেওয়া। যার জন্য বাংলাদেশে ধনী-গরিবের পার্থক্য বিরাট।

উত্তরাঞ্চলের বন্যাকবলিত মানুষ দুর্বিষহ জীবনযাপন করছে বলে জানান গণফোরাম নেতা সাইয়িদ। তিনি বলেন, ডেঙ্গু, খুন, ধর্ষণ, বন্যা সব মহামারিতে রূপান্তরিত হয়েছে। এই মহামারির সরকার জনগণ চায় না। শেয়ারবাজার থেকে টাকা লুট হওয়ার অভিযোগ করে বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন টাকা পাচারকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেবেন। কিন্তু তাতো পারবেন না, অন্তত নামগুলো বের করেন।’

আবু সাইয়িদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর নাম করে যারা লুটপাট শুরু করেছেন তাদের মুখে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর নাম শোভা পায় না। জনগণ ঐক্যবদ্ধ হলে জোর করে ক্ষমতায় থাকা সরকারকে জনগণ হটিয়ে দেবে।

সুব্রত চৌধুরী বলেন, এই মুহূর্তে রাষ্ট্রপ্রধান জনগণের পাশে নেই। এ সরকারকে ‘ভোট ডাকাতির সরকার’ হিসেবে অভিহিত করে সুব্রত চৌধুরী বলেন, জনগণের দুঃখে তারা পাশে থাকবে না এটাই স্বাভাবিক।

মানুষ ডেঙ্গুতে ভুগছে কিন্তু দুই মেয়র আনন্দ মিছিল করে বেড়ায় বলে অভিযোগ করেন সুব্রত চৌধুরী। তিনি বলেন, এ সরকার যত দিন দেশ শাসন করবে তত দিন মানুষের দুঃখ বাড়বে। তিনি দুই মেয়রের পদত্যাগ দাবি করেন।

অবস্থান কর্মসূচিতে আরও অংশ নেন গণফোরামের সভাপতি পরিষদের সদস্য আমসা আ আমিন, জগলুল হায়দার আফ্রিক, সাংগঠনিক সম্পাদক লতিফুল বারী হামিমসহ প্রমুখ।

সর্বশেষ

তালতলীতে মহানবী (সা.)-এর ব্যঙ্গ চিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদে মানববন্ধন

বরগুনার তালতলীতে মহানবী (সা.)-এর ব্যঙ্গ চিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার (২৯অক্টোবর) সকাল ১০টার সময় উপজেলার বিভিন্ন মসজিদের মুছল্লী ও সর্বস্তরের...

দেশে আরও ২৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৬৮১

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ২৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাড়াল ৫ হাজার ৮৮৬ জনে। নতুন...

ডিবি কার্যালয়ে নেওয়া হয়েছে ইরফান সেলিমকে

ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) হাজী মোহাম্মদ সেলিমের ছেলে ইরফান মোহাম্মদ সেলিম ও তার দুই সহযোগীকে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) কার্যালয়ে নেওয়া হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার...

‘১২ বছরে ৪৫০ কিলোমিটার মহাসড়ক ৪ লেনে উন্নীত’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, গত ১২ বছরে প্রায় ৪৫০ কিলোমিটার সহাসড়ক ৪ লেনে উন্নীত হয়েছে। আরও প্রায়...