জিঙ্কসমৃদ্ধ খাবার কেন খাবেন

সুস্থ জীবন যাপন করতে হলে শরীরের প্রয়োজনীয় পুষ্টির ভারসাম্য থাকা জরুরি। জিঙ্ক এমনই একটি খনিজ যা শরীরের অনেক কিছুর জন্য দায়ী। শরীরে জিঙ্কের মাত্রা কমে গেলে প্রবলভাবে চুল পড়তে থাকে। মাথা ফাঁকা হয়ে টাক পড়ে। জিঙ্ক শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। এটি শরীরের টিস্যুগুলিকেও মেরামত করে। শরীরে জিঙ্ক খুব বেশি কমে গেলে স্বাদ ও গন্ধ পাওয়া না।

শুধু তাই নয় শরীরে জিঙ্ক কমে গেলে প্রজনন ক্ষমতাও হ্রাস পায়। এ কারণে ঘাটতি পূরণে জিঙ্কসমৃদ্ধ খাবার খাওয়া প্রয়োজন।

যে খাবারগুলি শরীরে জিঙ্ক বাড়াতে সাহায্য করে-

তিল ও কুমড়ার বীজ: কুমড়া, কুমড়ার বীজ, তিলেও প্রচুর পরিমাণে জিঙ্ক পাওয়া যায়। এছাড়াও, এই জিনিসগুলিতে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার রয়েছে। এগুলি খেলে জিঙ্কের ঘাটতি পূরণ হয়।

সবজি ও ডাল: জিঙ্কের ঘাটতি হলে বেশি করে সবজি খেতে হবে। এছাড়া ছোলা, মসুর ডাল এবং তুর ডাল, শিম ইত্যাদি খেতে হবে। এগুলির মধ্যেই প্রচুর পরিমাণে জিঙ্ক পাওয়া যায়।

মাশরুম: জিঙ্কের ঘাটতি পূরণের জন্য খাদ্যতালিকায় মাশরুম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। মাশরুমে ভরপুর ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম, ফসফরাস এবং প্রোটিনে থাকে যা জিঙ্কের ঘাটতি পূরণ করতে সাহায্য করে।

বাদাম: বাদামে শুধু আয়রন,পটাশিয়াম, ফলিক অ্যাসিড, ভিটামিন ই, ম্যাগনেসিয়াম ইত্যাদি থাকে না, সেই সঙ্গে জিঙ্কও থাকে। সূত্রঃ সমকাল। সম্পাদনা ম\হ। বৈ ০৯২৫\০৮ 

Related Articles